অভাবের তাড়নায় রাস্তায় ভিক্ষা করছেন প্রবীণ অভিনেতা!

শেয়ার সোশ্যাল মিডিয়া

বার্তাবহ চাঁদপুর ডেস্ক: দীর্ঘ ৫০ বছর ‘ধরে অভিনয় করছেন শংকর ঘোষাল। উত্তম কুমার, সলিল চৌ’ধুরীর মতো মানুষের সঙ্গেও’ কাজ করেছেন তি’নি। অভা’বের তাড়নায় ‘আজ তার হাতে ভিক্ষার ঝুলি! সামান্য খাবা’রের ব্যব’স্থা করতে হাত পা’ততে হচ্ছে মানুষের কাছে’। প্রবীণ অভিনেতার এমন করুণ দ’শা নিজের ‘ফেসবুক ওয়ালে তুলে ধরেছে’ন সব্যসাচী’ চৌধুরী।

তিনি লিখেছে’ন, ‘দীর্ঘ ৫০ বছরের অভিনয়জীব’ন ৭০ বছরের শংকরবাবুর। দে’খা হলেই এখনো পুরনো দি’নের গল্প বলেন’। উত্তম কুমার, সলিল’ চৌধুরী আরো কতজ’নের সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞ’তা শেয়ার করেন। দুঃখ করে ব’ললেন, বাংলার থি’য়েটারটা শেষ হ’য়ে গেল। এক কালে মাস’ মাইনে ছিল, ‘বোনাস ছিল। দিল্লি-বোম্বে থেকে’ নামকরা অভিনেতারা আস’তেন। আর এখন হ’লগুলো দেখ’লে কষ্ট হয়।’

নিজে’র স্ত্রী এবং ছোট নাতিকে ‘নিয়ে গৌরীবাড়ির মোড়ে এক জরাজীর্ণ বাড়িতে থাকেন শংক’র ঘোষাল। সর্বশেষ ‘সৌ’দামিনীর সংসার’’ ধারাবাহিকে কাজ করেছে’ন। তার আগে ‘মহাপীঠ’ তারাপীঠ’ ধারাবাহিকেও তিন ‘দিনের কাজ করেছি’লেন। কিন্তু তারপরই’ হাতে আর কো’ন কাজ ছিল না। খা’বারের পয়সাটুকু না থাকায় হাতিবা’গানের মোড়ে হাত পে’তেছিলেন প্রবী’ণ এই অভি’নেতা।

সব্য’সাচী তার ফেসবুক পোস্টে শংকর ঘো’ষালের’ বাড়ির ঠিকানা, ফোন নাম্বার এ’বং টাকা পাঠানোর একাধিক ‘মাধ্যমের কথা জানি’য়েছিলেন। তা’কে সাহায্য করতে স’বাইকে এগিয়ে আসার আহ্বা’ন জানান।

সব্যসা’চীর পোস্টে কাজ ‘হয়। শংকর ঘোষালের সাহা’য্যে এগিয়ে আসেন অনে’কেই। সে কথা জানি’য়ে সব্যসাচী আরেকটি ‘পোস্টে লে’খেন, ‘১২ ঘণ্টা আগে শং’কর ঘোষালকে নিয়ে পোস্টটি করেছি’লাম। এই ১২ ঘণ্টা’য় শংকরদার অ্যাকাউ’ন্টে প্রায় ৪০ হাজার টাকা ‘ঢুকেছে। তা’র বাড়িতে আগামী এক মাসের’ খাবার ঢুকেছে। ওষু’ধপত্রও চলে আসবে আজকালের ম’ধ্যে। সবচেয়ে বড়’ কথা, একটা কাজেরও ব্য’বস্থা হয়েছে।‘

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *