একসাথে তিন সন্তানের জন্ম

Spread the love

বার্তাবহ চাঁদপুর ডেস্ক: রংপুরে একসঙ্গে তিন ছেলে সন্তানের জন্ম দিয়েছেন সোহানা পারভিন নামে এক গৃহবধূ। অপূর্ণ বয়সেই সন্তান তিনটি সিজারের মাধ্যমে জন্ম দেওয়ায়,আশঙ্কামুক্ত না হওয়ায় নবজাতকদের ৭২ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণে রেখেছেন চিকিৎসক। তিন সন্তান জন্মের পর পরিবারের সদস্যরা খুশি হলেও তাদের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তিত শিশুদের পিতা।

মিঠাপুকুর উপজেলার বৈরাতিহাট পিয়ার এলাকার বাদল মিয়ার স্ত্রী সোহানা পারভিন।

স্থানীয় ও গৃহবধূর স্বজনরা আরটিভি নিউজকে জানিয়েছেন, ওই গৃহবধূর ১২ বছরের একটি ছেলে ও ছয় বছরের একটি মেয়ে রয়েছে। এরমধ্যে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন তিনি। আল্ট্রাসনোগ্রামসহ বিভিন্ন পরীক্ষার পর জানতে পারেন তার গর্ভে তিনটি সন্তান রয়েছে।

পরে এক বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শে সোহানা পারভিনকে বৃহস্পতিবার দুপুরে নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে সিজার অপারেশনের মাধ্যমে তিন সন্তানের জন্ম দেন তিনি।

হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. তুলি রহমান আরটিভি নিউজকে বলেন, অপূর্ণ বয়সেই সন্তান তিনটি সিজারের মাধ্যমে জন্ম দেওয়া হয়েছে। মা ভালো থাকলেও নবজাতকরা আশঙ্কামুক্ত নন। এজন্য ৭২ ঘণ্টা না গেলে নবজাতকদের আশঙ্কামুক্ত বলা যাবে না। নবজাতকদের ৭২ ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে।

পারিবারিক সূত্র জানায়, স্নাতক পাশ করার পর একটি ওষুধ কোম্পানিতে রিপ্রেজেন্টিভের চাকরি করতেন নবজাতকদের বাবা বাদল মিয়া। এখন একটি ওষুধের দোকানে কর্মচারী হিসেবে কাজ করছেন। নবজাতকদের চিকিৎসা করার মতো আর্থিক সামর্থ্য তার নেই।

সোহানার স্বামী বাদল মিয়া আরটিভি নিউজকে বলেন, তিন সন্তান জন্মের পর খুশি হলেও তাদের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তিত। সন্তানদের ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে কোনো একটি চাকরির আকুতি জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.